70+😂 Funny Bengali jokes | funny jokes in bengali

বর্তমান এই প্রযুক্তির দিনে আমরা আমাদের দৈনন্দিন জীবনে এতটাই ব্যস্ত হয়ে পড়েছি যে, এখন আমরা আর নিজেকে কিংবা নিজের পরিবারকে বিশেষ সময় দিতে পারি না। আর এই বর্তমান সময়ে কর্ম প্রতিযোগিতার শীর্ষে পৌঁছানোর জন্য আমরা সারা দিন কাজ কাজ আর কাজ ছাড়া আর কিছুই বুঝি না। আমি ইটা বলছি না যে এই বিষয়টা খারাপ। নিজেকে এবং নিজের আপনজনদের একটি স্বচ্ছল জীবন দিতে আমাদেরকে প্রতিনিয়ত কঠোর পরিশ্রম করে যেতে হবে।


কিন্তু সমস্যা হল এই যে, এই প্রজন্ড কর্ম ব্যস্ততায় আমরা কখন যে আমাদের জীবনের মূল মন্ত্র “জীবনে সুখী এবং হাঁসি খুশি থাকা” টা ভুলে গেছি তা আমরা বুঝতেই পারি না।


যার ফল সরূপ কিছু মানুষ মানসিক বিষাদ এবং ডিপ্রেশনের শিকার হয়ে পড়েন। তাই বিজ্ঞানীদের মতে আমাদের নিজেদের কে প্রতি দিন এমন কিছু কাজে কিছু সময়ের জন্য ব্যস্ত রাখতে হবে যা আমাদেরকে আনন্দ প্রদান করবে।


তাই বলি আমার সমস্ত বন্ধু এবং বান্ধবীদের আপনি আপনার কাজের কিছু সময় বের করে নিজেকে কিছু আনন্দের মহুর্ত দিন। আপনি যে কোনো ভাবে নিজেকে বিনোদন করতে পারেন যেমন কোনো খেলায় অংশ গ্রহণ করা কিংবা গান শোনা ইত্যাদি ইত্যাদি।


এই পোস্টটির মাধ্যমে আমি একটি ছোট্ট চেষ্টা করলাম আপনাকে একটু ভালো সময় উপহার দেওয়ার এই পোস্টটিতে আমি আপনার জন্য কিছু সেরা Funny Bengali jokes তুলে দিলাম। আসা করবো আপনার সময়কে আরো সুন্দর করে তুলতে আমার এই Funny Bengali jokes সাহায্য করবে।


তাহলে বন্ধুরা নিজেরা হাঁসি খুশি থাকুন আর নিজের আসে পাশে নিজের রসবোধের সাহায্যে একটি Positive পরিবেশ গড়ে তুলুন।

Funny Bengali jokes #1

একজন লােক নদীর ধারে বেড়াচ্ছিল , হঠাৎ পা পিছলে পড়ে গেল নদীতে । সে সাঁতার জানত না । জলে ডুবে যেতে লাগল ।এমন সময় পথিক রাস্তা দিয়ে যাচ্ছিল । তখন লােকটি চীৎকার করে বলল — আমি সাঁতার জানিনা , জলে ডুবে যাচ্ছি । আমাকে বাচাও । পথিক একটু হেসে বললে – সাঁতার জান না তাে কি হয়েছে ? এই সুযােগে সাঁতার – শিখে নাও । সাঁতার শেখার এমন সুযােগ আর হবে না । 😀 

Joke#2

দু ’ বন্ধুতে সিনেমা দেখছিল হঠাৎ এক বন্ধু বলে উঠলে কি হয়েছে ? প্রথম বন্ধু বলল — আমার মানি ব্যাগটা বালিশের নিচে রয়ে গেছে । দ্বিতীয় বন্ধু বললে — এজন্য ভাবছ কেন ? তােমার চাকরটি তাে খুব বিশ্বাসী । প্রথম বন্ধু । সেখানেই তাে বিপদ । যদি বৌকে দিয়ে দেয় ।

Joke#3

পূজো প্যাণ্ডেলে মাইকে ঘােষণা — একটি বছর ছয়ের বাচ্চা ছেলেকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না , খুঁজে দিলে নগদ পঞ্চাশ টাকা পুরস্কার । একটি বাচ্চা এগিয়ে এসে একজনের হাত ধরে বললে , কাকু , আমার বাবার কাছে পৌছে দাও তাে , তারপর ফিফটি ফিফটি ।

Joke#4

মালিক ডাইভারকে বললে – টায়ার পাংচার হলাে কি করে ?ড্রাইভার – কাচের টুকরােয় পড়েছিল । মালিক — তুমি কাচের টুকরাে দেখতে পাওনি ? ড্রাইভার — আজ্ঞে না । কারণ গাড়ীর নীচে যে লােকটা চাপা পড়েছে , তার পকেটে ছিল মদের বােতল ।

Joke#5

বিমানের যাত্রী এক বিখ্যাত বিজ্ঞানী । বিমান তখন মাঝ আকাশে । হাত – ব্যাগ থেকে জরুরি একটা চিঠি বের করে পড়তে গিয়ে তিনি দেখলেন যে চশমাটা ফেলে এসেছেন বাড়িতে । পাশ দিয়ে হেঁটে যাচ্ছিল স্টয়ার্ড । বিজ্ঞানী – ওহে ইয়ং ম্যান , চিঠিটা একটু পড়ে দাও তাে । স্টয়ার্ড : স্যার , আমার দশা আপনারই মতাে , পড়াশােনা বেশিদূর এগােয়নি ।

Joke#6

দু ’ জন যুবক রাস্তার দাঁড়িয়েছিল । সেই রাস্তা দিয়ে আসছিল দুটি যুবতী । তাদের দেখে একটি যুবক ইসারা করে একটি মেয়েকে দেখিয়ে বন্ধুকে বললে — আমি ওকে আড়চোখে দেখছিলুম । সঙ্গে সঙ্গে এক যুবতী বললে — আমি ওকে স্যান্ডেল বদল । করে মারছিলাম !

Joke#7

এক পুলিশ রাত্রে রাস্তায় পাহারা দিচ্ছিল । হঠাৎ তার কানে গেল একজন বাঁচাও বলে চীৎকার করছে । পুলিশ তাড়াতাড়ি সেখানে গিয়ে দেখলে একটি লােক কুয়ায় পড়ে গেছে । অন্ধকার , ভাল দেখা যায় না । পুলিশ তাড়াতাড়ি একটা দড়ি ঝুলিয়ে দিয়ে লােকটিকে টেনে তুলতে লাগল । খানিকটা উপরে উঠে আসতেই দেখা গেল , লােকটি আর কেউ নয় স্বয়ং পুলিশ ইন্সপেক্টার । আর যায় কোথা পুলিশ দড়ি ছেড়ে দিয়ে স্যালুট করলে । পুলিশ ইন্সপেক্টার আবার পড়ে গেল কুয়ায় ।

Joke#8

একটি বাসে একজন মােটা লােক বসেছিল । তার সামনে বসেছিল আর একটি লােক । মােটা লােকটিকে দেখে সে মুচকি মুচকি হাসছিল । এমন সময় কণ্ডাক্টার আসতে লােকটি থাকতে না পেয়ে মােটা লােকটিকে দেখিয়ে বললে – ওনার কি একটা টিকিট মােটা লােকটি বললে কণ্ডাক্টারকে — আমাকে দুটো টিকিট দাও । দেড়খানা আমার আর আধখানা ওর । এই বলে সামনের লােকটিকে দেখিয়ে দিলে ।

Joke#9

মন্দিরে ঢােকার মুখে এক সাহেবকে আটকে দিল একজন ব্যক্তি । সে বলল স্যার , জুতাে এখানে খুলে রেখে মন্দিরে ঢুকুন । আরে , আমি তাে খালি পায়ে এসেছি ।
— আপনি খুব ভুল করছেন ।
কেন , মন্দিরে তাে খালি পায়ে আসতে হয় ।
— এখানে তা হয় না । এখানকার নিয়ম হল আপনি জুতাে পরে আসবেন আর সে জুতাে এখানে জমা রেখে তবে মন্দিরে যেতে পারবেন ।

Joke#10

একটি ছেলে বই পড়তে পড়তে বাবাকে জিজ্ঞাসা করলে বাবা , সহায়ক কাকে বলে ? বাবা — যে কারও কাজ কর্ম করে দেয় , তাকে সহায়ক বলে । ছেলে — তাহলে আপনি মায়ের সহায়ক ।

Joke#11

একটি চাকর তার কৃপণ মালিককে বললে — হুজুর ! আমি রাত্রে স্বপ্ন দেখলাম আপনি আমাকে ২৫টাকা দিয়েছেন ।
মালিক বললে — ঠিক আছে । সামনের মাসের বেতন থেকে ২৫ টাকা কেটে নেওয়া হবে ।

Joke#12

শিক্ষিকা ছাত্রকে বললেন — এমন একটি বাক্য বল , যাতে বর্তমান কাল , ভূতকাল এবং ভবিষ্যৎ কাল আছে । ছাত্র বললে — একশাে বছর আগে আমি তােমাকে ভাল বাসতাম আজও বাসি — আর ভবিষ্যতেও বাসবাে ।

Joke#13

এক কৃপন বাবা ছেলেকে নতুন চশমা কিনে দিয়েছিল । ছেলে চেয়ারে বসে চশমা চোখে দিয়ে কি যেন চিন্তা করছিল ।
বাবা । জিজ্ঞাসা করলে — কি বাবা পড়ছাে তাে ?
ছেলে — না বাবা !
বাবা – তাহলে কি লিখছ ?
ছেলে — না বাবা !
বাবা – ( রেগে ) তাহলে চশমা চোখে দিয়ে বসে আছ কেন ? খুলে ফেল । শুধু শুধু চশমাটা খরচ করে কি লাভ ।

Joke#14

এক ছাত্রকে শিক্ষক জিজ্ঞাসা করলেন — আচ্ছা বলােতাে , শ্রীরামচন্দ্র কি জন্য ঘর ছেড়ে বনে গিয়েছিলেন ? ছাত্র — ঘর ভাড়া দিতে পারেননি বলে ?

Funny Bengali jokes #15

একজন লােক ধােপাকে বললে — প্যান্ট ইস্ত্রি করতে কত লাগবে ?
যােপা — এক টাকা ।
লােক — তাহলে তুমি একদিক ইস্ত্রি করে দাও । আমি সাইড থেকে ফটো তুলব ।

Joke#16

এক ডাক্তার এক মহিলাকে বললে – আপনাকে আমি বহু দিন যাবৎ ছেলেকে হালকা খাদ্য দিতে বলেছিলাম আপা খাইয়েছেন ? মহিলা আজ্ঞে হ্যা ! ডাক্তার – কি খাইয়েছেন ? মহিলা – কমলা লেবুর খােসা , আপেলের খােসা , সামান্যমাটি , একটি কাচের গুলি , সামান্য কাগজের টুকরাে !

Joke#17

একজন ভিখারি একটি ছেলেকে বললে – – বাবা একটি পয়সা দেবে ?
সঙ্গে সঙ্গে ছেলেটি বললে — আমি যে হিসাব জানি না ।

Joke#18

এক ডাক্তার রােগীকে বললে — আপনি যে চেক দিয়েছিলেন তা ফেরৎ এসেছে । রােগী বললে – ডাক্তার বাবু আমার রােগটাও ফিরে এসেছে ।

Joke#19

ওস্তাদ সাগরেদ-কে জিজ্ঞাসা করলে – তােমার বাবা বােধহয় খুব বড়লােক ! তাই রােজ আমার জন্য ভাল ভাল কাপড় আনাে ! সাগরেদ বল্লে — আরে না আমি হচ্ছি ধােবার ছেলে !

Joke#20

বিড়ালের উপর রাগ করে এক মহিলা তাকে থলেয় বেঁধে জঙ্গলে ছেড়ে দিয়ে আসতে বল্লে , চাকর থলে নিয়ে চলে গেল । তারপর তিন দিন বাদ চাকরটি ফিরে আসতে মহিলা জিজ্ঞাসা করলে
– কিরে তাের ফিরে আসতে এত দেরী হলাে কেন ?
চাকর — আজ্ঞে রাস্তা ভুলে গেছিলাম ।
মহিলা-তাহলে ফিরে এলি কি করে ?
চাকর – সেই বিড়ালটার পিছু পিছু ।

Joke#21

একজন পুলিশ অফিসারকে বললে – স্যার আমার ছুটি চাই ।
অফিসার — কেন ? ছুটি কি হবে ?
পুলিশ — আমার স্ত্রীর ডেলিভারী হবে সেইজন্যে ।
অফিসার — কবে তােমার স্ত্রীর ডেলিভারী হবে ?
পুলিশ — আজ্ঞে আমি বাড়ি যাবার ঠিক ন ‘ মাস পরে ।

Joke#22

এক ভদ্র মহিলা তার স্বামীকে বললে — তুমি আমার নাম ধরে ডাক কেন ?
তােমার দেখাদেখি ছেলেটাও আমাকে নাম ধরে ডাকে।
স্বামী বললে — তাহলে কি মা বলে ডাকবাে ?

Joke#23

এক রােগী ডাক্তারকে বললে — ডাক্তার বাবু ?
আমার একটি রােগ দেখা দিয়েছে ।
ডাক্তার – কি রােগ ? |
রােগী — আমি হেঁটে যাবার সময় এক পা আগে আর এক পা পিছনে থাকে । ডাক্তার – – ঠিক আছে । এই ট্যাবলেট দুটো নিয়ে যাও । এর একটা রাত্রে ঘুমােবার পরে খাবে আর একটা ঘুম থেকে ওঠার আগে খাবে ।

Joke#24

দুটি চাকর কথা বলছিল ,
প্রথমটি বললে – ভাই আজ তিনবছর বাদে ছুটি পেয়েছি , কাল দেশে যাব ।
দ্বিতীয়টি বললে . . . তিন বছর ছুটি দেয়নি ?
প্রথম — না ভাই তিন বছর দেশে যাওয়া হয়নি ।
দ্বিতীয় – – – – এতদিন যখন গেল , পুজো দেখেই যাও ।
প্রথম — না ভাই আমাকে যেতেই হবে । চিঠি পেয়েছি এক, সপ্তাহ আগে আমার একটি ছেলে হয়েছে ।

Joke#25

একজন লােক তার ডাক্তার বাবুকে জিজ্ঞাসা করলে কোনও পুরুষ , ৰা নারীকে কি করে বুঝা যাবে যে সে অজ্ঞান হয়ে গেছে ?
ডাক্তার – পুরুষের বুকের স্পন্দন থেমে গেলে আর মেয়েদের কথা বন্ধ হয়ে গেলে ।

Joke#26

একটি ছােট ছেলে তার বাপকে বল্পে – বাবা ! আজ থেকে আর গরুর জন্যে ভুষি কিনতে হবেনা ।
বাবা – কেন রে ?
ছেলে – মাষ্টার মশায় বলেছেন আমার মাথায় নাকি ভুষিতে ভরা।

Joke#27

দুটি স্ত্রীলােক কথা বলছিল ।
প্রথম জন বললে – তােমার হারটি তাে খুব সুন্দর । কত দিয়ে কিনেছ ? দ্বিতীয় জন হেসে বললে – বেশী দিতে হয়নি । শুধুমাত্র সারাদিন কেঁদেছি । আর রাত্রে কথা বলিনি ।

Joke#28

এক প্রেমিকা তার প্রেমিক যুবককে বললে – দেখ ডালিং ।
আমার যে প্রথম প্রেমিক দিয়েছে এই সােনার আংটিটা । তােমাকে যদি বিয়ে করি , তুমি আমাকে কি দেবে ।
প্রেমিক – আমি আগে তােমাকে ডাইভাের্স করবাে ।

Joke#29

একজন নববিবাহিত যুবতী রাত্রে তার স্বামীকে বললে আমি বাথরুমে যাব , তুমি আমার সঙ্গে চল । ।
স্বামী – — বললে কেন , ভয়কি ? আলাে জ্বলছে তুমি যাওনা । মেয়েটি বললে — আমি একা তাে কখনাে যাইনি বাথরুমে ।
স্বামী – তাহলে কি মায়ের সঙ্গে যেতে ?
মেয়ে – না ।
স্বামী – তৰে কি বােনের সঙ্গে যেতে ?
মেয়ে – তাও না ।
স্বামী – তবে কার সঙ্গে যেতে ।
মেয়ে — আমাদের মাষ্টার অসীমদার সঙ্গে ।

Funny Bengali jokes#30

একজন আটিষ্ট তার খদ্দেরকে বললে — এই ছবিটার পিছনে আমার পাঁচ বছর সময় কেটেছে ?
খদ্দের — এত কষ্ট করলে ছবিটা আঁকতে ?
আটিষ্ট – আজ্ঞে না , ছবিটা এক সপ্তাহেই শেষ হয়েছিল , কিন্তু খদ্দের পেলাম পাঁচ বছর বাদে ।

Joke#31

এক মহিলা স্বামীকে বললে — দেখ , ছেলেটা আজকাল আর আমাকে মা বলে ডাকে না ।
স্বামী – রেগে ) ঠিক আছে , আমি ওকে এমন শাস্তি দেব যে , তার বাপ পর্যন্ত তােমাকে মা বলে ডাকবে ।

Joke#32

বাপ ছেলেকে বললে – দেখ বেটা , আমি নদীতে সাতার কাটছি , তুমি এখানে চুপ করে যদি বসে থাকতে পার , তাহলে তােমাকে ঘরে গিয়ে একটা টাকা দেব ।
ছেলে বললে — আর যদি ফিরে না আসাে , তাহলে কি মায়ের কাছ থেকে নেব ?

Joke#33

দু ’ বাবুতে কথা হচ্ছিল ।
প্রথম বাবু বললে – দেখ ভাই । আজকাল কেমন মিথ্যার যুগ এসেছে । এই দুনিয়ায় আজকাল আর কেউ সত্যি কথা বলে না । ।
দ্বিতীয় বাবু বললে — আমি কিন্তু একটি ছেলেকে জানি । সে কখনও মিথ্যা কথা বলে না ।
প্রথমজন বললে — চল তাকে দেখে আসি ।
দ্বিতীয় জন বললে — আর তাকে দেখে কি লাভ ? সে তাে বােবা ।

Joke#34

একজন লােক সিনেমা দেখতে গিয়ে , বুকিং কাউন্টারে গিয়ে একটা টাকা দিয়ে বললে — আমাকে একখানা টিকিট দিন ।
বুকিং থেকে বললে — আর এক টাকা দিন । টিকিটের দাম দুটাকা ।
লােকটি বললে — আমি তাে কানা , একটা মাত্র চোখ , এক চোখে দেখব ! তাই হাফ টিকিট দিন ।

Read Also:Best bengali caption for FB/Instagram/WhatsApp DP Picture

Joke#35

একটি রােগী ডাক্তারখানায় গিয়ে বললে , ডাক্তারের নেম প্লেটে ডাক্তারের নামের নিচে লেখা রয়েছে , পী , পী , এম , এফ দেখে রােগীটি এই লেখার অর্থ জিজ্ঞাসা করলে ।
ডাক্তার বল্লে — এই অর্থ খুবই সােজা । পী , পী , মানে হলাে প্রাইমারি পাস , আর এম , এফ এর মানে হলাে মিডিল ফেল ।

Joke#36

একজন পুলিশের স্ত্রী তার স্বামীর পকেট থেকে একখানা দশটাকার নােট বার করে নিয়েছিল । পুলিশটি জানতে পেরে , রেগে গিয়ে স্ত্রীকে বললে — তুমি আমার পকেট থেকে দশটাকা । চুরি করেছ । আমি চুরির অপরাধে তােমাকে গ্রেপ্তার করবাে । স্ত্রী তখন স্বামীর হাতে পাঁচ টাকা দিয়ে বললে – কেন শুধু
এ মেলা বাড়াচ্ছ এই নাও পাচটাকা দিচ্ছি মিষ্টি খেতে । আমাকে ছেড়ে দাও । পুলিশ খুশী হলাে ।

Joke#37

এক ব্যবসায়ী তার কর্মচারীকে বললে – দেখ শ্যাম , আজ ৩০ বছর হলাে তুমি আমার এখানে চাকরী করছ । তােমার কাজ কর্ম দেখে আমি বেশ খুশি হয়েছি । তােমার জন্য আমার কিছু করা দরকার । তাই ভাবছি , আজ থেকে তােমাকে শ্যাম বলে ডাকব না , শ্যাম বাবু বলেই ডাকব । ।

Joke#38

বিদ্যালয়ে একজন শিক্ষক ছাত্রদের জিজ্ঞাসা করলেন আচ্ছা বলাে , তাে হাতী আর মাছিতে কি তফাৎ ?
প্রথম ছাত্র — হাতীর শুড় আছে কিন্তু মাছির নেই , এই তফাৎ ।
দ্বিতীয় ছাত্র — মাছির পালক আছে কিন্তু হাতির নেই এই তফাৎ ।
অল্প বয়সী ছাত্রটি বললে — মাছি হাতীর উপরে বসতে পারে কিন্তু হাতি মাছির উপরে বসতে পারে না ।
এইটাই সবচেয়ে বড় তফাৎ ।

Joke#39

দুই ভাইয়ের কথােপথনঃ
১মঃ ইটালী কোথায় দাদা ?
২য়ঃ কোথায় আবার , বিলেতে !
১মঃ বিলেত আর ইটালী কি এক জায়গা নাকি ?
২য়ঃ নিশ্চয়ই । খাপড়ার ইংরাজী যেমন টালি , বিলে ইংরাজী তেমন ইটালী

Funny Bengali jokes #40

‘ শ্রী ’ য়ের একটা বিজ্ঞাপন তৈরী করে দিন তাে । বাজারে দুটি বি আছে — শ্রী ও বিশ্রী ।

Read Also:New bengali funny jokes SMS for whatsapp and facebook

Joke#41

শ্ৰীলা: আমিও তােমাদের সঙ্গে ছবিটা দেখতে যাবাে মেজমামা ।
মামাঃ তা হয় না । তুমি এখনও ছােট আছ । এ ছবি তােমার দেখতে নেই ।
শ্ৰীলাঃ আমাদের ক্লাসের তাে কত মেয়ে ‘ অ্যাডাল্টস্ ওনলি ’ ছবি দেখে ।
মামাঃ কত ছেলেরাও তাে লেডিজ ওনলি সীটে বসে , সেটা কি উচিত ?।

Joke#42

সত্যযুগ তাে আসন্ন এবং সত্যযুগের সঙ্গে কলকিও নিশ্চয়ই আসবেন । আপনার মধ্যে মানে আমাদের মধ্যে মানে আমাদের জানা শােনাদের ভেতর থেকে কেউ কি কলকি সেজে বসতে পারেন ? কে যে আসল কলকি , তা একমাত্র শ্রীহুঁকোই বলতে পারেন ।

Joke#43

পত্রিকায় প্রকাশিত খবরে দেখলাম আচার্য বিনােভাবে বলেছেন , এখন ভারতীয় বৈজ্ঞানিকদের একবার কাছাকাছি কোন একটা গ্রহে যাওয়া উচিত এবং ফিরে আসা উচিত । কিন্তু কোন গ্রহে ? ভাবের ঘােরে তার তিনি কোন উল্লেখ করেই নি । সত্যাগ্রহে । আবার কোথায় ?

Joke#44

সমূদ্রে জাহাজডুবির ফলে জলে পড়া এক মহিলাকে এক অতিকায় কচ্ছপ আটচল্লিশ ঘণ্টা ধরে নিজে পথে বহন করে অবশেষে নিরাপদে এক জাহাজের ডকে পৌঁছে দিয়েছে। পরে জানা গেল সেটি একটি কুমীর !

Funny Bengali jokes#45

Funny Bengali jokes
Funny Bengali jokes

সামান্য চশমার খাপ চুরির জন্য একজনের ছ মাস সশ্রম কারাদণ্ড হয়েছে বলে প্রকাশ । বিচারক দেখা যাচ্ছে যেমন চোখা তেমনি খাপ্পা ।

Joke#46

চীন দেশের ছেলেমেয়েরা পড়া দেওয়ার সময় গুরুমশায়ের দিকে পিছন ফিরে দাড়ায় । তার হাত চালানাের সুবিধে দেওয়ার জন্যই কি তারা পিট এগিয়ে রাখে ? আসলে নিজের পা চালানাের সুবিধের জন্য এই পৃষ্ঠ প্রদর্শন করে থাকে বলেই ধারণা ।

Joke#47

দুধের সর আর ঈশ্বর – এর মধ্যে মিল পেয়ে দর্শনের এক ছাত্রী জানাচ্ছে — কলের জলের প্রভাবে দুধে সর পড়ে না , চোখের জলের অভাবে ঈশ্বর মেলে না । প্রভাবে ও অভাবে দুধের সর ও ঈশ্বর দুই – ই দুর্লভ । সর দর্শনের সার দর্শন ।

Joke#48

আমার মেয়ের প্রশ্ন – “ আচ্ছা মা সব রােগের নামের শেষে । ‘ টিস ’ থাকে কেন ? যেমন ধরুন ‘ ব্রংকাইটিস ’ , ‘ মেনিনজাইটিস ফেলিনজাইটিস , ডায়াবিটিস ’ , ‘ কোলাইটিস ’ , ‘ টনসিলাইটিস ,‘ গ্যাসট্রাইটিস ইত্যাদি । এমন কি ঐ ফোঁড়ার শেষে সেই পুলটিস । সত্যি ।

Joke#49

নানা পত্রপত্রিকায় ধাধার জৰাৰ পাঠিয়ে কোনদিন ফল পাইনি । সেদিন এক ফলের দোকানের সাইন বাের্ডে ধাঁধা দেবে অবাক হয়ে গেলাম । সেখানে লেখাঃ একটি ফল উল্টালেই খুলে যাবে লাক । আরেকটি উল্টে মজা পাবেন বেবাক জাম – আয়ের জন্য সেই কলা – দেখানাে ধাধা !

Joke#50

শিক্ষক মহাশয়ঃ হ্যারে ভােলা ইংরাজীতে কাঁচা বলে আমি তােকে বারবার বানানটা লিখে আনতে বললাম , ব্যাপরটা কি ? ঐ একবার লিখে এনেছিস । ছাত্রঃ স্যার আমি যে অঙ্কে ও কাঁচা এখন কি করি ?

Joke#51

ইন্টারভিউতে চাকরি প্রর্থীকে প্রশ্ন বয়স কত ? বত্রিশ বছর ।
— এর আগে কোন দিন চাকরি করেছেন ?
-হ্যাঁ
— কত বছর ?
— চল্লিশ বছর ।
বয়স বত্রিশ অথচ চাকরি করছেন চল্লিশ বছর এ কি সম্ভব হয় ?
— বাকিটা নাইট করেছি স্যার ।

Joke#51

এক পণ্ডিত মশাই পুত্রের বাবাকে বললেন শুনুন দত্তবাবু ছেলের বয়স না হলে বিয়ে দেবেন না । পুত্রের বাবা বললেন বয়স কালে বিয়ে দিলে ও কি করবে ?

Joke#52

খুব রেগে গিয়ে মনিব তার চাকরকে বললেন হারে মদন তাের বয়স কম আর তুই কি না কাজে ফাকি দিস । মদন বললাে কাজে ফাকি দেবাে কেন ? আজ্ঞে কাজের পাশে শুয়ে থাকি ।

Joke#53

স্ত্রী — তুমি কতখানি চালাক সেটা বােঝার জন্য তােমাকে বিয়ে করেছি ।
স্বামী – সেটা তােমার তখনই বােঝা উচিৎ ছিল । তােমায় যখন বিয়ের প্রস্তাব দিয়েছিলাম ।

Joke#54

প্রশ্নঃ – ডি . এম , কে পুরাে কথাটা কি ?
উঃ — ডিম ভাঙছি খাবি আয় ।

Funny Bengali jokes #55

রােগী দেখে অপারশেন থিয়েটারে ডাক্তারের হাত কাঁপছে । রােগী: ডাক্তারবাবু সাবধানে ছুরি চালাবেন । ডাক্তার মুচকি হেসে নানা ভয়ের কিছু নয় এটা আমার । প্রথম অপারেশন ।

Joke#56

এ লাইনে কত বছরের অভিজ্ঞতা আপনার আছে ? প্রায় একশাে চল্লিশ বছর কিন্তু আপনার বয়সে তাে ত্রিশ বছর মাত্র । আমি এ লাইনে চৌদ্দ জনের কাছ থেকে বারাে বছরের অভিজ্ঞতার কথা শুনেছি ।

Joke#57

এক শিক্ষক তার ছাত্রকে পাক্কালে সূত্র কি জিজ্ঞাসা করলে , সে না পারলে তিনি তার টুটি টিপে চেপে ধরলেন । ছেলেটি তখন হাত পা ছুঁড়ে মাষ্টার মশাইকে কিল চড় ঘুষি লাথি মেরে চিৎকার শুরু করল । শিক্ষক মশাই তখন বললেন , এই হােল পাঙ্কালের সূত্র উদাহরণ দেয়ে বােঝালাম । অর্থাৎ আবদ্ধ পাত্রে । যে কোন অংশে , ( যেমন দেহের টুটিতে ) চাপ প্রয়ােগ করলে তখন সেই চাপ অপরিবর্তিত মাত্রায় সব দিকে সঞ্চালিত করে । তুমি সেই চাপ হাত পা বাড়িয়ে সব দিকে সঞ্চালিত করলে । তুমি ঘুষি ও লাথি ছুঁড়তেও কসুর করলে না । পাঙ্কালের সূত্রে রাস্কালের দৃষ্টান্ত ।

Joke#58

আমাদের তেলে নতুন চুল ওঠে ’ – একটি বিজ্ঞাপন । — তবু ভাল । আর সব তেলে পুরনাে চুল উঠে যায় ।

Joke#59

গান্ধীজী একশ পঁচিশ বছর বেঁচে থেকে ভূ – ভারতে শ্রীরামরাজা দেখে যেতে চেয়েছিলেন । রাশিয়ায় সম্প্রতি এক নতুন সিরাম অবিস্কৃত হয়েছে যার দৌলতে স্বছন্দে একশ পঁচিশ বছর বাঁচা যায় । হায় স্ট্যালিনকে সিরাম – রাজা না দেখেই যেতে হয়েছে ।

Read Also:Best romantic bengali quotes on love for girlfriend SMS special

Joke#60

শ্রীবিজয় সিং নাহারের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়ার তােড় – জোড় চলছে বলে জোর খবর । কিন্তু কংগ্রেসের অনাহার দশা কি ভাবা যায় ?

Joke#61

ডাক্তারবাবু , কি হয়েছে আপনার ?
— আজ্ঞে ভীষণ জ্বর , তাহলে এক কাজ করুন বাড়ী গিয়ে
ঠাণ্ডা জলে ভালাে চান করে পাখা খুলে।খালি গায়ে তিন ঘণ্টা শুয়ে থাকুন,
-এতে জুর ছেড়ে যাবে ?
-না নিউমােনিয়া হবে ।
-ঐ এ কি বলেন ? ।
-আমি নিউমােনিয়া রােগের ডাক্তার ।

Joke#62

দুই দিক থেকে দুই মাতাল এলােমেলাে এক মাতাল বললাে , জানিস মাঝে মাঝে মনটা খারাপ হয়ে যায় । তখন মনে হয় । গােটা পৃথিবীটা কিনে নিই । দ্বিতীয় মাতাল কিনবি কি করে ? আমি বিক্রি করলে তবে না কিনৰি । বর্তমান আমার বিক্রি ইচ্ছে নেই ।

Joke#63

বিলু পিলু দুই ভাই । ক্লাশে শিক্ষকমহাশয় বললেন , হারে বিলু পিলু আমি তােদের গরুর সম্বন্ধে রচনা লিখতে দিয়ে ছিলাম তােরা দুজনে দেখেছি একই রকম লিখেছিস । এর মানে কি ? স্যার আমাদের মােটা গরু একই রকম তাই । তাই রচনা হয়েছে একই রকম ।

Joke#64

ভােটের আগের নেতারা ভাষণে বলেন আপনারা যদি আমাকে ভােট দিয়ে জয়ী করেন তাহলে আমি আপনাদের গ্রামে একটা স্কুল তৈরী করে দিব । এক ভদ্রলােক বলে উঠলেন স্কুল তৈরী করবেন কি করে ? এটা তাে মাতালের গ্রাম , স্কুল করার জমি কোথায় ? মাতাল মানুষ করবাে জমি কিনবাে , স্কুল তৈরী করবাে আগে ভােট পাই ।

Joke#65

শিক্ষক – বাংলা থেকে ইংরাজীতে অনুবাদ কর । মেয়েটি নীচে দাঁড়িয়ে আছে ।
ছাত্রী – মিস্ আন্ডার স্ট্যাণ্ডিং ।

Joke#66

ছয় বছরের ছেলে তার বাবাকে জিজ্ঞাসা করলাে আচ্ছা । বাবাদের বুদ্ধি কি সব সময় ছেলেদের চেয়ে বেশী হয় ? বাবা বললেন অবশ্যই । তাহলে বলাে ঘড়ি কে আবিষ্কার করেন ? কেন , জেমস্ ওয়াট?

Joke#67

শিক্ষক মহাশয় ছাত্রকে ? তােমার নাম । ছাত্র ও বিধান চন্দ্র রায় ।
শিক্ষক : বা বেশ নাম সকলেরই পরিচিতি ।
ছাত্র : তা তাে হবেই আমরা যে এই পাড়ায় অনেকদিন বলে আছি ।

Joke#68

জেলখানা থেকে দশজন কয়েদি পালিয়েছে । জেলখানার পাহারাওয়ালাকে ধমকে জিজ্ঞাসা করলেন কাল রাতে তুমি কি করছিলে ? দরজাগুলাে ভালাে ভাবে বন্ধ করনি ? বেরােবার দরজাগুলাে ভালাে করে বন্ধ করেছিলাম । তবে ভেতরে ঢোকার দরজাগুলাে হয়তাে খােলা ছিল ।

Joke#69

একছাত্র বইএর দোকানে জিজ্ঞাসা করছে শরীর বিদ্যার উপর নতুন কোন বই আর বেরােয়নি ? এগুলাে প্রায় দশবছরের পুরানাে । দোকানদার ও এই দশবছরের মানুষের শরীরে আর নতুন কোন হাড় গর্জায় নি তাই ।

Funny Bengali jokes #70

পুলিশ:তুমি দোকানে ঢুকে শেষ পর্যন্ত একটি মাত্র প্যান্ট চুরি করেছে ।
আসামী: হ্যা , স্যার , দুর্বলতা বশতঃ করে ফেলেছি ।

Joke#71

তিন বন্ধুর মধ্যে এক বন্ধুর শুরু হয়েছে তর্ক । কার দেশ উন্নত । তিনজন হলেন জার্মান , আমেরিকা ও ভারৱর্ষ ।
প্রথমে জার্মান : ভদ্রলােক বললেন জানেন আমাদের দেশ এত উন্নত যে সেখানকার এলােপ্লেন একেবারে বায়ুমণ্ডল ঘেঁসে যায় । |
আমেরিকা ? একেবারে বায়ুমণ্ডল ঘেঁষে যায় ।
জার্মান : না ঠিক বায়ুমণ্ডল ঘেসে নয় দু ’ আঙুল নীচ দিয়ে যায় । আমেরিকান বললাে আমাদের দেশ সব চাইতে উন্নত । আমাদের সাবমেরিন সমুদ্রের কেদম তলা দিয়ে যায় । । | আমেরিকান না তলা ঘেঁসে না দু আঙ্গুল উপর দিয়ে যায় । এবার ভারতীয় বলা শুরু করলো আমাদের দেশ আকে উন্নতি করছে । সেখানকার লােকেরা নাক দিয়ে ভাত খায়। দুজনেই একসঙ্গে সে কি নাক দিয়ে ভাত খায় তা কি করে সম্ভব । ভারতীয় – না মানে নাক দিয়ে নয় , দু আঙ্গুল নীচ দিয়ে খায়।

Joke#72

বিখ্যাত শিল্পপতি শ্ৰীনারসিং প্রসাদ দীর্ঘ রােগভােগের পর । স প্রস্থ হয়ে নিজের হােমেই রয়েছেন এখন প্রকাশ । নারসিং হােমে নেই আর এখন ?

Joke#73

জনৈক বিখ্যাত সাঁতার শিক্ষক সম্প্রতি টেনার হয়েছে বলে জানা গেল । অনেককে সাঁতার শিখিয়ে শেষটায় তিনি ডুবলেন?

Joke#74

চীনদেশে কারাে কোন মটর গাড়ি নেই , এমন কি চেয়ারম্যান মাও সায়েবেরও না । সবাই বিলকল বে- কার ?

Joke#75

নুন যা রেশনের দোকানে পঁচিশ – তিরিশ পয়সা কিলাে। তাই বাজারে কালাে কি সাদা জানিনে ষাট থেকে আশি পয়সায় বিকোচ্ছে কেন । নিমকের এই হারামি ! !

Joke#76

কোথাকার এক প্রাথমিক শিক্ষক শুনলাম তার এক সহযােগী শিক্ষকের কান কামড়ে ছিড়ে নিয়েছেন । তার অপরাধ তিনি । প্রধান শিক্ষকের কথায় কর্ণপাত করেন নি । সেই হেতু কি এই কর্ণপাত হােল ? ভালই হােল একরকম । এরপর আর কারও কথাতেই কান দেবার কোন দায়ই রইল না তার । ।

Joke#77

এক বাস যাত্রী খুব রেগে গিয়ে বাস ড্রাইভারকে গালাগালি করছেন ঠিক মতো বাস চালাতে পারেন না তাে বাস চালানাে কি দরকার ? ড্রাইভার মুচকি হেসে বললেন ওটা আছে বলেই তাে গালাগালি করছেন , নেমে যেতে পারেন ।

Joke#78

সেদিন জনৈক ব্যক্তি পাতাল রেলের কাজের ফলে ধর্মতলা ।
চত্বর জুড়ে যে ,যে পাহাড় এবং খানাখন্দের সৃষ্টি হয়েছে , ট্যাফিক জ্যামের মাথায় টাল সামলাতে না পেরে সেই গর্তেরই একটাই হুমড়ি খেয়ে পড়ে যান । ফলে এক ভােগান্তি । এই মাগগি গণ্ডার বাজারে ডাক্তারকে কিছু গাট গচ্চা দিতে হল , কলকাতা কি অবস্থা ! | পাতালে যেতে গেলে হাসপাতাল হয়ে যেতে হয় সে তাে জানা কথা !

Joke#79

জনৈক ডাক্তার তার রােগীর ভুল চিকিৎসার ফলে রােগীটির একটি অসুখ শুরু হােল । রােগী স্বাভাবতই অসুখ শুরু হােল । রােগী স্বভাবতই প্রচণ্ড ক্ষিপ্ত হয়ে উঠে । ডাক্তারের অন্যায়ের ফলেই তাে রােগী আবার রােগে পড়ল । ফলস্বরূপ পেসেন্ট হয়ে উঠেলাে ইমপেশেন্ট ।

Bonus Bengali funny short story

Bengali funny short story
Funny Bengali jokes

বিজ্ঞান এর অবদান

হর্ষবর্ধন আর গােবর্ধন দিল্লী যাচ্ছে । পথে দুভাইয়ে বিজ্ঞানের বিভিন্ন অবদান নিয়ে আলাপ আলােচনা মশগুল ছিল । অবশেষে আগ্রাতে এসে গাড়ি দাঁড়ালো । হর্ষবর্ধনের ইচ্ছা হলাে আগ্রাতে নেমে তাজমহলটা দেখে যাবে । চেকারের কাছ থেকে জানলাে । অবস্থা ! গাড়ি আগ্রাতে আধঘণ্টা দাঁড়ায় । দুই ভাইয়ে তাড়াহুড়াে করে ছুটলাে তাজমহল দেখতে । যাবার আগে নিজেদের কামরা । চেনার জন্য একটা চিহ্ন খুঁজছিল । কারণ অতবড় ট্রেনের মধ্যে খুঁজে বের করা কঠিন তাে । হঠাৎ একটা ছাগলকে তাদের কামরার সামনে শালপাতা চিবােতে দেখে সেটাকেই চিহ্ন হিসাবে চিহ্নিত করে তারা তাজমহল দেখতে গেল । ফিরে এসে সেখানে কলকাতাগামী ট্রেন এসে দাঁড়ালাে । ছাগলটা তখনও পাতা চিবিয়ে চলেছে । ফিরে এসে তারা ভারী খুশীমনে নিজেদের কামরায় ঢুকলো । গাড়ি ছেড়ে দিল । কথায় কথায় হর্ষবর্ধন তার ওপরের বাঙ্কের লােককে জিজ্ঞাসা করলাে ভাই ,
-কোথায় যাচ্ছেন ?
জনৈকঃ কলকাতা।
হর্ষবর্ধন: দেখেছিস বিজ্ঞানের অবদান । ওপরের বার্থের লােক কলকাতা যাচ্ছে । আর নীচের বার্থের লােক ।অর্থাৎ আমরা দিল্লী যাচ্ছি । কেমন ব্যাপার ?

অতি চালকের গলায় দড়ি

হর্ষবর্ধন আর গােবর্ধনের বাড়ীতে একবার এক ভিখিরী এল হরিনাম করতে করতে । সাত সকালে দুই ভাই খুশী । ভিখিরিটাকে ডেকে একেবারে ঘরের মধ্যে নিয়ে এল । এই ভিখিরিটা ছিল খোড়া । দুই ভাই তা দেখে ভারী কষ্ট পেল । হর্ষবর্ধন কষ্ট পেল ।
হর্ষবর্ধন সান্ত্বনা দিলঃ ভগবান তােমাকে খোড়া করেছেন সেজন্য দুঃখ কোর না ভাই , পরজন্মে তারই দয়ায় —
গােবর্ধনঃ তুমি একজন সেরা ফুটবল প্লেয়ার হবে ।
ভিখারীঃ হবই তাে ।
হর্ষবর্ধনঃ ( পুলকিত হয়ে ) তবেই বােঝ । খোঁড়া হওয়া খুবই দুঃখের তাতে সন্দেহ নেই , কিন্তু কানা হলে আরাে কষ্ট পাবাে।
ভিখারীঃ ঠিক বলেছেন বাবু । আগে যখন কানা ছিলাম তখন লােকে আমাকে কেবল অচল পয়সা চালাত । বাধ্য হয়ে আমায় খোঁড়া সাজতে হল । কি করি বলুন ? লােকে ভারী ঠকায় ।

Read Also: Funny whatsapp dp

শেষ কথা :

আসা করি আপনার এই Funny Bengali jokes গুলি ভালো লেগেছে। কমেন্টে এই Funny Bengali jokes গুলি কেমন লেগেছে জানিয়ে উৎসাহ দিলে আরো Funny Bengali jokes লিখব। ধন্যবাদ।

আপনার জন্য আরও কিছু মজাদার পোস্ট

5 thoughts on “70+😂 Funny Bengali jokes | funny jokes in bengali”

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

%d bloggers like this: